সাইফ উদ্দিন-আবুল হাসানের বোলিংয়ে জয় এইচপির

সাইফ উদ্দিন-আবুল হাসানের বোলিংয়ে জয় এইচপির

স্পোর্টস ডেস্ক : ব্যাটসম্যানরা কেউ করতে পারেননি দারুণ কিছু। কয়েকজনের কিছুকিছু অবদানে তবু রান হয়ে যায় বেশ। বোলারদের দুর্দান্ত বোলিংয়ে তাতেই এসেছে বড় জয়। অস্ট্রেলিয়া সফরে শেষ একদিনের ম্যাচেও জিতল বিসিবি হাই পারফরম্যান্স (এইচপি) দল।
মঙ্গলবার ডারউইনে বিসিবি এইচপি জিতেছে ১৪১ রানে। মারারা ক্রিকেট গ্রাউন্ডে ২৫৯ রান তুলছিল এইচপি। নর্দান টেরিটরি (এনটি) আমন্ত্রিত একাদশ গুটিয়ে যায় ১১৮ রানেই।
অস্ট্রেলিয়া সফরে পাঁচটি একদিনের ম্যাচেই জিতল এইচপি দল। শুরুটা হয়েছিল ১ উইকেটের কষ্টার্জিত জয়ে। শেষ হলো বড় ব্যবধানের জয়ে।
আগের ম্যাচে অপরাজিত ৭২ রান করা অধিনায়ক লিটন দাস এদিন ফেরেন ১২ রানেই। তিনে নেমে নাজমুল হোসেন শান্ত আউট প্রথম বলেই।
শুরুতে দ্রুত রান করার কাজটি এদিন করেছেন এনামুল হক। জাতীয় দলে ফেরার লড়াইয়ে থাকা উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান এদিন করেছেন ৫১ বলে ৫৩। পাঁচটি চারের সঙ্গে ছিল তিনটি ছক্কা।
চতুর্থ উইকেটে ৫৬ রানের জুটি গড়েন তাসামুল হক ও ইরফান শুক্কুর। তবে সম্ভাবনাময় ইনিংস দুটিকে বড় করতে পারেননি কেউই। দুজনই ফিরেছেন ৪৬ রান করে।
ছয়ে নেমে ইমতিয়াজ হোসেন ৩৯ করেছেন ৩৯ বলে। লোয়ার মিডল অর্ডারে সাইফ উদিন, তানবীর হায়দার, আবুল হাসান এদিন রান পাননি। তবে দশে নেমে ২১ বলে ৩৫ করে দলের রান আড়াইশ ছাড়িয়ে নিয়ে যান আবু হায়দার।
আবু হায়দার পরে বল হাতে উইকেট পাননি। তবে নতুন বলে তার সঙ্গী আবু জায়েদ নেন দুটি উইকেট। আর আবুল হাসান ও সাইফ উদ্দিন তো গোটা সফরেই বল হাতে দারুণ ধারাবাহিক।
৫ ওভার বোলিং করেই ৩ উইকেট নেন আবুল হাসান, ৪ ওভারে তিনটি সাইফ। পরে দুই লেগ স্পিনার জুবায়ের হোসেন ও তানবীর হায়দারও উইকেট শিকারে যোগ দিলে ৩১.৪ ওভারেই গুটিয়ে যায় এনটি একাদশ।
বৃহস্পতিবার থেকে শুরু তিন দিনের ম্যাচ দিয়ে শেষ হবে এইচপি দলের অস্ট্রেলিয়া সফর।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:
বিসিবি এইচপি: ৪৮.৩ ওভারে ২৫৯ (লিটন ১২, এনামুল ৫৩, শান্ত ০, শুক্কুর ৪৬, তাসামুল ৪৬, ইমতিয়াজ ৩৯, সাইফ উদ্দিন ৩, তানবীর ৫, রাজু ২, আবু হায়দার ৩৫, জুবায়ের ৮*; বিকন ২/৩২, ম্যাককেল ২/২৭, ম্যাকসুইনি ০/২৭, গ্রেগরি ১/৩৩, ফ্রিম্যান ০/৩৩, ও’কনেল ১/৬২, ডয়েল ৩/৪৫)।
এনটি একাদশ: ৩১.৪ ওভারে ১১৮ (ডিকম্যান ১, হল্ট ১৫, গ্রেগরি ৪, ওয়াহ ১৩, ফ্রাই ০, ও’কনেল ৫, ডয়েল ৫, ম্যাকসুইনি ০, হ্যাকনি ১৫*, ফ্রিম্যান ২৯, ডেভ ৯; আবু হায়দার ৪-১-১৭-০, আবু জায়েদ ৫-১-১৫-২, আবুল হাসান ৫-১-২০-৩, সাইফ উদ্দিন ৪-০-১৩-৩, জুবায়ের ৭-২-২৭-১, তানবীর ৬.৪-১-২২-১)

SHARE THIS NEWS

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Scroll To Top