নগরজুড়ে ময়লা, আবর্জনা, কাদাপানি

নগরজুড়ে ময়লা, আবর্জনা, কাদাপানি

আসাফুর রহমান কাজল : বৃষ্টি কাদা আর ময়লায় একাকার নগরী। মাঝে মাঝে চলছে কেসিসির দায়সারা কাজ। কোথায়ও কোথাও রাস্তার অর্ধেকটা জুড়ে পড়ে রয়েছে ময়লা আবর্জনা। ঈদের বাকী আর ক’টা দিন। ঈদের দিনে সকলে পরিপাটি আর সুন্দর সাজের পরিকল্পনা নিলেও নগরী থাকছে নোংরায় পূর্ণ এমন আশঙ্কা নগরবাসীর।
নগরীর ১নং ওয়ার্ড থেকে ৩১নং ওয়ার্ড পর্যন্ত প্রায় প্রতিটি রাস্তার মধ্যে পড়ে রয়েছে ময়লা আবর্জনা। কেসিসির আবর্জনা পরিষ্কার কর্মীরা এখন ডুমুরের ফুল। কোথাও কোথাও দেবদূতের আগমনের কারণে আবর্জনা পরিষ্কার হতে দেখা যায় বলে জানিয়েছেন অনেকেই। বৃষ্টি হলেই জলাবদ্ধতার মধ্যে চলে আবর্জনা আর কাদাপানির বিচরণ। এভাবে এ পরিচ্ছন্ন নগরীর মান ক্ষুন্ন হচ্ছে বলে মনে করেন অনেকে। চলতি মাসের ৯ তারিখ পিন্টু তন্দ্রা নামের একটি ফেসবুক আইডি থেকে কেসিসি কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ করেন, ৩০নং ওয়ার্ডের রাস্তা এবং খাম্বার গোড়াগুলো থেকে ময়লা আবর্জনা পরিষ্কার করার জন্য। এভাবে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও অনেকে অনুরোধ করছে আবর্জনা পরিষ্কার করতে এবং কেউ কেউ কেসিসিকে মন্দ কথা বলতে ছাড় দিচ্ছেন না।
১নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা জাহিদুল ইসলাম সাগর জানান, এ এলাকায় ময়লা পরিষ্কার করার লোক আছে কিনা সন্দেহ রয়েছে। প্রতিটা রাস্তার মোড়ে মোড়ে খাম্বার গোড়ায় ময়লা রয়েছে। এ এলাকা যে কেসিসির মধ্যে রয়েছে তা মনে হয় না।
২৩নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা মোঃ আরাফাত জানান, আমরা বাবুখান রোডে বসবাস করি। এ রোডটি ২৯ এবং ২৩নং ওয়ার্ডের সীমানা। ফলে এখানে ময়লায় ভরে থাকে সবসময় এবং এখানের ড্রেন ভরে রাস্তা ড্রেনের পানিতে তলিয়ে থাকে বারো মাস।
খুলনা সিটি কর্পোরেশনের নির্বাহী প্রকৌশলী (যান্ত্রিক) ও প্রধান বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা মোঃ আব্দুল আজিজ জানান, সিটি কর্পোরেশনের যন্ত্রগুলো চালানোর তেলের সমস্যা ছিল। আমরা যেখান থেকে তেল নেই সেখানে তেলের সঙ্কট রয়েছে। তাছাড়া তেলের টাকা দিয়েছি কিন্তু তিল পাম্প পূর্বের বকেয়া কেটে নিয়েছে। আমরা গত চারদিন আগে তেল পাম্পকে বারো লাখ টাকা দিয়েছি কিন্তু তেল তেমন পাচ্ছি না। তবে আজ রাতে (মঙ্গলবার) কিছু তেল পেয়েছি। কিন্তু সেটি তুলনামূলক কম। আমরা অনেকদিন তেলের অভাবে বড় বড় এস্কেভেটর চালাতে পারছি না।

SHARE THIS NEWS

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Scroll To Top