Breaking News
Home / স্থানীয় সংবাদ / বাগেরহাটে নারীদের মারপিট করার অভিযোগে তাঁতীলীগ নেতা বহিষ্কার

বাগেরহাটে নারীদের মারপিট করার অভিযোগে তাঁতীলীগ নেতা বহিষ্কার

মামলা দায়ের

বাগেরহাট প্রতিনিধি
বাগেরহাট শহরের আলিয়া মাদ্রাসা রোড এলাকায় নারী ও কিশোরীদের ওপর হামলার ঘটনায় জেলা তাঁতী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক লিটু দাস ওরফে ডিকে লিটু (৩০)কে প্রধান আসামি করে মামলা দায়ের করা হয়েছে। শহরের রেলরোড এলাকার সাইদ সেখ বাদী হয়ে শুক্রবার রাতে বাগেরহাট মডেল থানায় মামলাটি দায়ের করেন।
মামলায় তাঁতীলীগ নেতা শহরের পৌরসভার পেছনের নিখিল দাসের ছেলে ডিকে লিটু, রেলরোড এলাকার রফেজ উদ্দিনের ছেলে জাকির হোসেন ও আলতাপ বকসীর ছেলে রিপন বকসী’র নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা আরও ৫/৬ জনকে আসামি করা হয়। তবে পুলিশ কোনো আসামিকে গ্রেফতার করতে পারেনি। এদিকে অসামাজিক ও সংগঠনবিরোধী কাজে লিপ্ত হওয়ায় জেলা তাঁতীলীগের সভাপতি এ বাকী তালুকদার শুক্রবার সন্ধ্যায় লিটু দাসকে সংগঠন থেকে বহিষ্কার করা হয়। যা প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে জানানো হয়েছে।
বাগেরহাট মডেল থানার ওসি মাহাতাব উদ্দিন বলেন, ৩ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা আরও ৫/৬ জনের বিরুদ্ধে মামলা রেকর্ড হয়েছে। আসামিদের আটকের জন্য পুলিশি তৎপরতা জোরদার করা হয়েছে। উল্লেখ্য, শুক্রবার সকাল ১১টার দিকে বাগেরহাট শহরের আলিয়া মাদ্রাসা রোড এলাকায় জনসম্মুখে চিহ্নিত সন্ত্রাসীরা লাঠিসোটা নিয়ে এ হামলা করে। এতে মিতা আক্তার (১৬), বোন আঁখি আক্তার (২১), চাচা সাইদ সেখ (৪০), মা আসমা বেগম (৪৩), ফুফু মুক্তা বেগম (৩০) ও তার ভাই আহত হয়। এ ঘটনার পর ওই এলাকায় চরম আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। কারণ স্থানীয়রা জানায়, তাঁতী লীগের নেতা হিসেবে পুলিশকে ম্যানেজ করে ডিকে লিটু ও তার সহযোগিদের ধারাবাহিক অত্যাচারে সাধারণ মানুষ অতিষ্ঠ ছিল।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*